ভাস্কুলার ডিমেনশিয়া - Alzheimer Society of Bangladesh

Dementia Help Line

Cell No: +8801720 498197
Cell No: +8801857 601061

Email:- info@alzheimerbd.com

ভাস্কুলার ডিমেনশিয়া

শতকরা ২০-৩০ ভাগ ক্ষেত্রে ভাস্কুলার ডিমেনশিয়া ঘটে থাকে।

রক্তনালী ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার ফলে অক্সিজেন সরবরাহে স্বল্পতা বা বিঘ্ন সৃষ্টি হলে ভাস্কুলার ডিজিজ হয়ে থাকে। উচ্চ-রক্তচাপ (নিয়ন্ত্রণে শৈথিল্য), রক্তে চর্বি (কোলেষ্টেরল) বৃদ্ধি, এথেরস্ক্লেরোসিস (নালী কাঠিণ্য জনিত বন্ধুরতা), হৃদপেশীর দুর্বলতা, ইত্যাদি কারণে সাময়িক বা দীর্ঘমেয়াদী রক্তপ্রবাহ স্বল্পতায় ব্রেনে অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ হলে মিনিষ্ট্রোক (মাইক্রো-ইনফার্ক্ট), মাইনর ষ্ট্রোক (স্বল্প-স্থায়ী)  বা ষ্ট্রোক হয়ে  স্নায়ুকোষ মরে যেতে পারে। এর প্রভাবে বাক-হীনতা, অর্ধাঙ্গ, তৎসহ বা শুধুমাত্র স্মৃতিহীনতা দেখা দিতে পারে।

যে সমস্ত মিনিষ্ট্রোক থেকে ভাস্কুলার ডিমেনশিয়া হয়ে থাকে সেগুলি এত মামুলি ধরণের যার কোন তাৎক্ষনিক লক্ষণ নাও থাকতে পারে অথবা সাময়িক মতিভ্রম ঘটাতে পারে। তবে প্রতিটি ষ্ট্রোকে ব্রেনের এক একটি ক্ষুদ্র অংশের রক্ত সরবরাহ নষ্ট হয় এবং এভাবে কতিপয় মিনিষ্ট্রোক সংঘঠিত হলে সেগুলির সম্মিলিত প্রভাবে মাল্টি ইনফার্ক্ট জাতের ভাস্কুলার ডিমেনশিয়া হতে পারে। ভাস্কুলার ডিমেনশিয়া এবং আলঝেইমার রোগ প্রায়শঃ একত্রে ঘটতে পারে এবং দুইএ মিলে ডিমেনশিয়ার মাত্রা, পর্যায় বা প্রকার নির্ধারণে (জীবদ্দশায়) সংশয়ের কারণ হতে পারে।

রোগের লক্ষণ

একটা সুনির্দিষ্ট দিন থেকে মানসিক অবনতি শুরু হয় এবং প্রতিটি অ্যাটাকের সাথে ধাপে ধাপে ডিমেনশিয়ার তীব্রতা বাড়ে। এটা যে ছোট ছোট (মিনি) ষ্ট্রোকের ফলে ঘটছে তা এর দ্বারা বুঝা যায়।

এর সঙ্গে তীব্র অবসাদ, ভাবাবেগের হ্রাসবৃদ্ধি এবং মৃগীর মত লক্ষণ (খিচুনি) থাকতে পারে।

ব্রেনের কোন বিশেষ অংশ (ভাস্কুলার টেরিটরি) অন্যান্য অংশের চেয়ে অধিক আক্রান্ত হতে পারে এবং দৃশ্যতঃ কিছু কিছু স্মৃতি ক্ষতিগ্রস্ত হলেও বেশীরভাগ স্মৃতি অক্ষত ও অবিকৃত থাকতে পারে।